Home Religion & History করোনা ইসলামী সভ্যতার পুনরুত্থানের সংকেত!

করোনা ইসলামী সভ্যতার পুনরুত্থানের সংকেত!

পৃথিবীতে কোন সভ্যতাই চিরস্থায়ী নয়।সেই ব্যবিলনের সভ্যতার কথাই বলেন! আর গ্রীক সভ্যতা বা বাইজেন্টাইন সভ্যতার কথাই বলেন! অন্যান্য সভ্যতার মতন পাশ্চাত্যের পতন ঘন্টাও বেজে উঠছে।কিন্তু যতদিন পর্যন্ত মুসলিম জাতি বেঁচে থাকবে টিকে রবে শুধু ইসলামী সভ্যতা। আজ করোনার কাছে কুফরি স্ম্রাজ্যবাদী সুপারপাওয়ারদের পতনঘন্টা বেজে উঠেছে। আর এদিকে ইসলামী সভ্যতার পুনরুত্থানের আলো উদ্ভাসিত হচ্ছে। ইসলামকে চেংগিস-হালাকু ঝড়ও থামাতে পারেনি। আধুনিক নব্য ক্রুশেডার বা নব্য মুশরিকরাও থামাতে পারবে না। রাসুলুল্লাহ সাঃ এর ভবিস্যৎবানী কখনও মিথ্যা হবে না কেননা তা সৃষ্টিকর্তা থেকে প্রদত্ত ওহী।

সারাবিশ্ব আজ লকডাউন। যুগের নরপিশাচ ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী নেতানেয়াহু এখন করোনাতে আক্রান্ত। ছোট হাম্মানের করূন অবস্থা দেখে যুগের ছোট ফেরাউন ডোনাল্ড ট্রাম্পের আজ ত্রাহিত্রাহি অবস্থা। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা আমেরিকার অতীতের সকল রেকর্ড ভেঙ্গে দিচ্ছে। আজ বিশ্ব অর্থনীতি পতনের দ্বারপ্রান্তে। আমেরিকান নেভীর কুখ্যাত বিমানবাহী রণতরী “রুজভেল্ট” যেকোন সময় টাইটানিকের মত পরিনতি বরণ করতে পারে। মুসলমানদের বিরুদ্ধে আকাশে দাপিয়ে বেড়ানো রাডার ফাঁকি দেওয়া আমেরিকার সর্বাধুনিক প্রযুক্তির 5G বিমান raptor-22,F-35 lightening আজ করোনার কারণে দীর্ঘদিন ধরে অকেজো হয়ে পড়ে আছে। সারা বিশ্বের স্ম্রাজ্যবাদীরা করোনার কাছে আজ ধরাশয়ি । স্পেনের রাজকুমারিও বাঁচেনি।

ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীও নিস্তার পায় নি । আজ রাশিয়ার S-400 missile অকেজো হয়ে পড়ে আছে। সেই স্ম্রাজ্যবাদী চীনের অর্থনীতি পতনের পর একের পর গজবের মাত্রা সমগ্র পৃথিবীর স্ম্রাজ্যবাদীদের চোখে আংগুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে যে,”দেখ! কোথার তোমাদের টেকনোলজী? এক ল্যাংড়া মশা দিয়ে নমরুদকে ধ্বংস করেছিলাম আর তোমাদেরকেতো আমি এর চাইতেও ক্ষুদ্র অনুজীব দিয়ে ধ্বংস করছি । কোথায় তোমাদের জাতিসংঘ !পারলে আল্লাহর গজব ঠেকাও ! কোথায় তোমাদের নেটো ,পারলে গজব ঠেকাও! ইলুমিনিটীর চালিকাশক্তি আমেরিকা ,ইসরাইল ও পাশ্চাত্য ইউরোপ তোমরা চেয়েছিলে করোনা ছড়ানোর দ্বারা প্রথমে চীনকে এবং অতঃপর সেই সফল স্টোরি থেকে আফ্রিকার মুসলিম অনুন্নত দেশগুলোতে পোলিও ভেক্সিনকে জীবানূ অস্ত্র হিসেবে ব্যবহারের মত অন্যান্য মুসলিম দুর্বল দেশগুলো ধীরে ধীরে ধ্বংস করবে! পৃথিবীর একক পরাশক্তি হবে!  ভেবেছিলে ভাইরাসটি শুধু ওহানে সীমাবদ্ধ থাকবে?? দেখ আজ কিভাবে তা তোমাদেরকেই গ্রাস করছে।পারলে ঠেকাও আল্লাহর গজব! গত এক শতাব্দী সেই উস্মানীয় খিলাফত পতন থেকে যে পরিমাণ পাপ পাশ্চাত্যের স্ম্রাজ্যবাদীরা করেছ তার ফল এখন ভোগ কর!

রাসুলুল্লাহ সাঃ বলেছেন প্রতি ১০০ বছর পর ইসলামকে টীকিয়ে রাখতে আল্লাহ কোন বিখ্যাত ব্যক্তিকে প্রেরণ করেন ।হিসাব করে দেখ যে সেই সময় নিকটবর্তী কিনা! ওদিকে খোরাসানে তালেবানদের বিজয় আজ সেই ইংগিতি দিয়ে যাচ্ছে যা আমাদের নবিজি সাঃ ভবিস্যতবাণী করে গেছেন ১৪০০ বছর আগে!হিসাব করে দেখ! এটা মুসলিম উম্মাহর সোনালী যুগের ইংগিত কিনা! মাহদীর সময় আসন্ন কিনা!! কোথায় আজ তোমাদের জাদুকরী শক্তি !! দেখ কীভাবে আল্লাহ ইলুমিনিটীর মেরুদন্ড জারজ রাষ্ট্র ইসরাইলের প্রধান্মন্ত্রীর বাহাদুরিকে মাটিতে মিশিয়ে দিচ্ছেন !তাকে স্বীকৃতিদানকারী ইলুমিনিটির রক্ষাকবচ তথা হার্ট আমেরিকাকে একেবারে নাস্তানুবনাদ করে ছাড়ছেন।আর ইহুদীদেরকে ফিলিস্তিনে প্রবেশ অধিকার দেওয়া ব্রিটিশ উপনিবাশের উত্তরাধিকারীকে নাজেহাল করছেন ।আর সেই আমেরিকাতে রেড ইন্ডীয়ান মেরে লুটপাটকারী ও ফ্রিমেসনের সুতিকাগার ও মুসলমানদের উপর গা শিহরণকারী ইঙ্কুইজেশনের তাণ্ডব চালানো স্পেনিশদের দাপট গুড়িয়ে দিচ্ছেন ।রোমের প্রানকেন্দ্র; বাইজান্টানের পতনের পর সমগ্র ক্রুশেডারদের হেডকোয়াটার ভ্যাটিকানের প্রহরী সেই রোমের আবস্থা আজ কি??রাসুল সাঃ কি বলেন নি কন্সটান্টিনোপল প্রথম বিজয় হবে; যা রাসুলুল্লাহ সাঃ এর ওফাতের ৮৫০ বছর পর বাস্তবায়িত হয় !!তিনি কি বলেন নি এরপর রোম বিজয় হবে !!তাহলে কী এটা শেষ জামানার আলামত অনু্যায়ি রোম বিজয়ের ইঙ্গিত নয় কি!! আর এই ফরাসী্রা’ কি ক্রুশেডের নেতৃত্ব দেয় নি !!এই ইতালি ও ফরাসিরা কী ব্রিটীশদের মত উসমানীয় খিলাফতকে উপনিবেশে বিভক্ত করে ক্ষত-বিক্ষত করে নি!! মুসলমানদের রক্তের গঙ্গায় ভাসায় নি??শাম ও আফ্রিকাতে স্ম্রাজ্যবাদী কালো থাবায় লক্ষ লক্ষ মা -বোনদের ইজ্জত লুণ্ঠন করে নি!!!তাইতো আল্লাহর পক্ষ থেকে তাদের উপর গজব বয়ে যাচ্ছে।আর নিকট ভবিস্যতে  ইমাম মাহদী খোরাসানের বাহিনীর মাধ্যমে মুসলমানদের পক্ষ থেকে বাদবাকি তো রয়েছেই ।অতএব হে স্ম্রাজ্যবাদীরা!এখান থেকে শিক্ষা গ্রহণ কর।

মুসলমানরা পারস্য বিজয়ের আগে রোম -পারস্যের যুদ্ধ লেগেছিল ।রোমানরা পরাজিত হয়েছিল ।কিন্তু পরবর্তিতে আবার ঘুরে দাড়িয়েছিল।।এর মাধ্যমে উভয়ের শক্তি ক্ষয় হয়েছিল ।অবশেষে মুসলিমরা পারস্য জয় করে অথচ তখন পারস্য ছিল বিশ্বের সুপারপাওয়ার ।কুরআন খুলে দেখ আল্লাহ কত চমৎকারভাবে বলছেন,”আমি কখনও এক দল দিয়ে আরেক দলকে শাস্তি দেই”। রাসুলুল্লাহ সাঃ যখন পারস্য জয়ের ইংগিত দিল তখন মক্কার কাফেররা হেসে উড়িয়ে দিয়েছিল!! অবশেষে মুসলিমরা নদীর পানির উপর দিয়ে ঘোড়া ছুটিয়ে শুধু পারস্যকে পদানত করে নি বরং রো্মের হিরাক্লিয়াসের কোমড় ভেংগে দিয়েছে।অতঃপরা ততকালীন সুপারপাওয়ার বাইজান্টান্দেরকে শুধু পরাজিতই করে নি বরং স্পেনকেও কব্জা করে ইউরোপে ইসলামের পতাকা উড্ডীন করে।তারপর ১৩০০ বছরের খিলাফতের শাসনে তা ভারত থেকে চীনে বিস্তৃত হয় ।পৃথিবীর তিন মহাদেশ তথা এশিয়া ,ইউরোপ,আফ্রিকাতে তা বিস্তৃত হয় ।আর আমেরিকা তো মুসলমানরাই আবিষ্কার করেছিল যা ইউরোপিয়রা স্পেনের মুসলমানদের ম্যাপ চুরি করার মাধ্যমে ইতিহাস চুরি করে নিয়েছে।এখন তো তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোগানও তা বিশ্ববাসীকে স্মরণ করে দিয়েছে। যাইহোক সেটা আমার আলোচ্য বিষয় না।মোটকথা দীর্ঘ ১৪০০ বছরের ইতিহাসে মাত্র ১০০ বছরের এই ছন্দপতনএর কথা আমাদের রাসুলুল্লাহ সাঃ বলে গেছেন হাদিসের ভবিস্যতবাণীর মাধ্যমে যে,পৃথিবির শেষভাগে আবার নব্যুয়াতের আদলে খিলাফাহ ফিরে আসবে।বর্তমানে খোরাসানে হুদাইবিয়া সন্ধির মত তালেবানদের সাথে শান্তিচুক্তির মাধ্যমে পাশ্চাত্যের নেটোজোটের নতজানু এবং
সিরিয়াতে শিয়া ইরান,আসাদ ,হিজবুল্লাহর ও তার সহযোগী রাশিয়ার বিরুদ্ধে এরদোগানের যুদ্ধ ও শান্তিচুক্তির সফলতা মুসলমানদের বড় বিজয়ের পুর্বাভাস দিচ্ছে।আর করোনা মুসলমানদের জন্য আল্লাহর পক্ষ থেকে রহমত হিসেবে পাপমুক্তির জন্য এসেছে ।আর কতক কাফেরদের জন্য এসেছে চীনাদের নওমুসলিমদের মত হেদায়তের আলোকবর্তিকারুপে বা ইসলামের বিরুদ্ধে যুদ্ধরত কাফেরদের উপর গজবরুপে।

আজ পাশ্চাত্যের ১০০ বছর স্ম্রাজ্যবাদী অহমিকা্র সুর্য আটলান্টিকে অস্তমিত হতে যাচ্ছে ক্ষুদ্র এক ভাইরাসের কাছে।আছে কেউ শিক্ষা নেওয়ার?রাসুলুল্লাহ সাঃ এর হাদিস অনুযায়ী সেদিন বেশি দূরে নয় যেদিন এমন কোন কাঁচা-পাকা এমন কোন ঘর বাকি থাকবে না ,যেখানে ইসলামের আলো পৌছাবে না,ইসলামের পতাকা উড়বে না।
রাসুলুল্লাহ সাঃ এর জন্মের সময় পারস্যের প্রাসাদ থেকে ১২টি পাথর খসে পড়ল।শ্ত শ্ত বছরের অগ্নিমণ্ডপ হঠাৎ নিভে গেল।বুঝিয়ে দিল অগ্নিপুজারি গ্ণকদেরকে যে,পৃথিবীতে বড় কোন পরিবর্তন আসছে।তেমনিভাবে মাহদী আসার আগে এটা স্ম্রাজ্যবাদীদের পতনের ইংগিত নয় তো??তাই আসুন সকলে এই ঘটনা থেকে শিক্ষা নেই।আমাদের অতীত পাপের জন্য তওবা করি। মুসলমানদের বিজয় ও শাহাদাতের মৃত্যু কামনা করি।
© Shibbir Ahmed

আপনাদের প্রিয় ওয়েবসাইট TRT Bangla এন্ড্রয়েড এপ্স লঞ্চ করেছে। প্রত্যেকে নিজের মোবাইলে ইন্সটল করতে ছবিতে ক্লিক করুন।