আগামী বছরের ভেতর সার্ভিসে আসতে চলেছে তুরষ্কের নিজস্ব প্রযুক্তিতে তৈরী এয়ার টু এয়ার মিসাইল

 

আগামী বছরের ভেতর সার্ভিসে আসতে চলেছে তুরষ্কের নিজস্ব প্রযুক্তিতে তৈরী দুটো এয়ার টু এয়ার মিসাইল।
সম্প্রতি টার্কিশ প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়েফ এরদোগান স্বয়ং বলেছেন তার দেশ আগামী ২০২০ সালের ভেতর নিজেদের টেকনোলজিতে তৈরী দুটি এয়ার টু এয়ার মিসাইল সার্ভিসে আনবে। একটির নাম Bozdogan (Merlin); অন্যাটির নাম Gokdogan। Bozdogan মিসাইলটি ডেভলপ করেছে টার্কিশ ডিফেন্স ইন্ডাস্ট্রিজ রিসার্চ এন্ড ডেভেলপমেন্ট ইন্সটিটিউট (SAGE)। এই কম্পানিটি ২০১৩ সাল থেকে কাজ চালিয়ে আসছিল। অবশেষে ২০১৮ সালের শেষদিকে তারা প্রথম প্রোটোটাইপ তৈরী করে এবং ২০১৯ এর শুরুতে টেস্ট করে। টেস্টিংয়ে এটি সফলভাবে টার্গেট হিট করতে সক্ষম হয়েছিল। SAGE জানিয়েছে- Bozdogan হবে BVRAAM। এটি লং রেঞ্জের হবে, প্রায় ১০০ কিমি রেঞ্জ হবে এই মিসাইলের। অন্যদিকে Gokdogan মিসাইলটি ডেভলপ করেছে সাইন্টিফিক এন্ড টেকিনোলজিক্যাল রিসার্চ কাউন্সিল অফ তুর্কি (TUBITAK)। এটি হবে শর্ট রেঞ্জ এয়ার টু এয়ার মিসাইল। টার্কিশ ডিফেন্স ইন্ডাস্ট্রিজ প্রেসিডেন্ট ইসমাইল ডেমির বলেছেন- দুটো মিসাইলের ইঞ্জিনই তৈরী করবে তুরষ্কের অস্ত্র নির্মাতা প্রতিষ্ঠান আসেলসান।
তুরষ্ক মেইনলি তাদের ন্যাশনাল ফাইটার F-16, একইসাথে আপকামিং ট্রেনিং জেট Hurjet ও ফিফথ জেনারেশনের স্টিলথ ফাইটার TAI TFX’এ মিসাইলগুলো ব্যাবহার করবে। F-16 এ বব্যাবহার হওয়া সাইডউইন্ডার মিসাইল AIM-9X ও BVR-120 এর ব্যাকাপ হিসেবেই রাখা হচ্ছে Bozdogan ও Gokdogan মিসাইল দুটিকে।

 

©শাফিন রহমান