সৌদি আরবে নিষিদ্ধ হল আবুল হাসান নাদভী (রহঃ) ও মাওলানা মাওদূদী (রহঃ) সহ অন্যান্য ওলামাদের কিতাব

 

টি আর টি বাংলা|

তবলীগ জামাত নিষিদ্ধকরণ নিয়ে সৌদি আরবের ফতোয়ার বিরোধিতার রেশ কমতে না কমতেই এবার নতুন বিতর্কের জন্ম সৌদি সরকারের বিরুদ্ধে।

সাম্প্রতিক সৌদি আরবের অজারাতুত তা’লীম বা শিক্ষা মন্ত্রণালয় ‘قائمة بالكتب املحظورة وفق البرقية املشار إليها أعاله’ শিরোনামে নিষিদ্ধ কিতাবের একটি তালিকা প্রকাশ করে। ৫০ পৃষ্ঠার এই তালিকায় উল্লেখিত বইগুলোর তালিকায় যেসব প্রণেতার কিতাব রয়েছে তাঁদের রয়েছেন বিশ্ববরেণ্য আলিম আবুল হাসান আলী নদভী , আবুল ফাত্তাহ আবূ গুদ্দাহ, মুহাম্মাদ আলী আস স্ববূনী রহঃ দেঁর মত বড়বড় আহলুস সুন্নাহের রত্ন এছাড়া জামায়াতে ইসলামীর প্রসিদ্ধ ইমাম মাওলানা মওদূদী রহঃ, ইখওয়ানের হাসানুল বান্না রহঃ, কারযাভী এমনকি সালমান আল আওদা,রয়ীসূনী ও সল্লাবীদের মতো সালাফী লেখকদের কিতাবাদি । লিস্টে উল্লেখিত আলেমদের কিতাবাদির অধিকাংশই উগ্রবাদ বিবর্জিত হবার সত্বেও সেগুলোকে নিষিদ্ধ তালিকার অন্তর্ভুক্ত করার হয়। কারণ হিসেবে অনেকে তাঁদের ইখওয়ান প্রভাবিত হওয়াকে মনে করছেন।

এদিকে সৌদির এই তালিকা প্রকাশের পর স্তম্ভিত মুসলিম বিশ্ব। সৌদি আরবকে পবিত্র দেশ হিসেবে সম্মান করেন মুসলিমরা, অথচঃ সেই দেশের সরকারের এধরনের কার্যক্রমের নিন্দা করা হয়েছে আরব সহ মুসলিম বিশ্ব থেকে।

উল্লেখ্যঃ মাত্র কয়েকদিন পূর্বে সৌদি আরবের সরকারী পক্ষ থেকে শান্তিপূর্ণ মুসলিম দাওয়াতি জামাতের বিরুদ্ধে ‘সন্ত্রাসবাদ’ , ‘শিরক’ সহ বিভিন্ন গুরুতর মিথ্যা অভিযোগ করে সৌদি আরব সরকার। এই নিয়ে সরগরম চলছিল। কিন্তু এরমধ্যে নতুন করে এই বিতর্ক মুসলিম বিশ্বে সৌদি আরবের মর্যাদাকে যে ক্ষুন্ন করবে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

 389 total views,  1 views today

Start Blogging

Register Here


Registered?

Login Here

Leave a Comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.